“কলকাতা আমার দ্বিতীয় হোম-সাকিব”

আইপিএল খেলতে বর্তমানে ভারতে অবস্থানরত বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের একটি সাক্ষাতকার নিয়েছেন ভারতের অন্যতম ক্রিকেট বিশ্লেষক ও ধারাভাষ্যকার হারশা ভোগলে। সে সাক্ষাতকারের চুম্বক অংশ তুলে ধরা হলো এখানে-

হারশা: বাংলাদেশ ক্রিকেটের প্রথম সুপারস্টার ধরা হয় তোমাকে। তুমিও কি এর সাথে একমত ?
সাকিব: (হাসি) না আসলে ক্রিকেটীয় দৃষ্টিকোণ থেকে আমি বর্তমানে ভাল খেলছি। আমি এ ব্যাপারে খুশি ও সন্তুষ্ট। ওভাবে আসলে ভাবা হয় নি কখনো।
হারশা: বাংলাদেশের অল্প যেসব ক্রিকেটারদের বাইরের দেশের লিগে চাহিদা আছে তাদের মধ্যে তুমি একজন। এই লিগগুলোকে তুমি কিভাবে মূল্যায়ন করো? আইপিএল এদের মধ্যে কোন অবস্থানে থাকবে ?
সাকিব: অবশ্যই এখানের আবহটা অন্যরকম। এটা আসলে পৃথিবীর অন্য কোন জায়গায় পাওয়া সম্ভব না। ক্রিকেটীয় দৃষ্টিকোণ থেকে দেখলে অনেকটা একই, খুব বেশি পার্থক্য নেই। যদিও আমি তুলনা করতে পছন্দ করি না , তবুও চলমান লিগগুলোর মধ্যে আইপিএলই সেরা।

harsha-bhogle
হারশা: তুমি যখন দেশে ফেরত যাও তখন কি অনেক মানুষ তোমাকে আইপিএল নিয়ে জিজ্ঞেস করে?
সাকিব: হ্যা অবশ্যই। তারা অনেক কিছু জানতে চায়। তারা আমার অভিজ্ঞতা ও অন্যান্য জিনিস সম্পর্কে জানার চেষ্টা করে। বিশেষ করে তারা মাঠের ক্রিকেট থেকে মাঠের বাইরের জিনিস সম্পর্কে বেশি জানতে চায়। এখন পর্যন্ত এটা আমার জন্য একটা ভালো অভিজ্ঞতা।

হারশা: তুমি কলকাতার হয়ে খেলছ, অনেকটা ঢাকার মত পরিবেশ। এটা কি তোমার জন্য সুবিধা?
সাকিব: হ্যা আমাকে এটা বলতেই হবে। আমি সবসময় বলি কলকাতা আমার ২য় বাড়ি (হাসি)। আমি এখানে প্রায় সাত বছর ধরে খেলছি। আমাদের ভাষা এক, সংস্কৃতি এক। আসলে এর থেকে ভালো কিছু হতে পারে না। কলকাতা থেকে আমার বাড়ি বেশি দূরে নয়। আমার বাড়িতে রাস্তা দিয়ে যেতে চার থেকে পাঁচ ঘন্টা লাগে।

হারশা: (হাসি) তুমি কি দুই খেলার মাঝে বাড়ি থেকে ঘুমিয়ে আসতে পারো ?
সাকিব: হ্যা আমি বেশ কয়েকবারই এমনটা করেছি। বিরতি দরকার হলে আমি সকালের ফ্লাইটে গিয়ে সন্ধ্যায় আবার চলে এসেছি। এটা আসলে আমার জন্য খুব মজার।

হারশা: তুমি যখন এখানে আসো, কেকেআর এর জার্সি পরে খেলো বাংলাদেশের মানুষ কি কেকেআরকে ফলো করে ?

সাকিব: অবশ্যই। আমি কেকেআর এর হয়ে যদি ম্যাচগুলো খেলি আমি নিশ্চিত সকলেই ম্যাচ গুলো টিভির সামনে বসে দেখে। শুধু আমি না মুস্তাফিজ ( মুস্তাফিজুর রহমান) এখন হায়দরাবাদের হয়ে খেলে। আমি খুব কমই হায়দরাবাদ নিয়ে আগে আলোচনা হতে দেখেছি, তবে এখন তারা হায়দরাবাদ নিয়েও বেশ আলোচনা করে। আসলে ক্রিকেটের সাথে তারা ঘনিষ্ঠভাবে সংযুক্ত আমরা যেখানেই যাই তারা লক্ষ্য রাখে এবং সে দলকে সমর্থন করে।

হারশা: শাহরুখের সাথে কেকেআর এর অভিজ্ঞতা?

সাকিব: এটা আসলে অসাধারণ। সে খুবই বিনয়ী, খুবই মিশুক। আমরা একত্রিত হলেই কিভাবে পরিবারের খেয়াল রাখব সে নিয়ে আলোচনা করি। এছাড়া আমি কিভাবে স্ত্রীকে খুশি রাখব এটা নিয়েও সে টিপস দিয়েছে ( হাসি)। আমার এগুলো বেশ কাজেও লেগেছে। আসলে এটাই তাকে মহান করেছে। তার বিনয়, তার কথা বলার ধরণ এগুলো একদম অসাধারণ।

Advertisements

Leave a Reply

Please log in using one of these methods to post your comment:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s